নারায়ণগঞ্জ থেকে কিছুটা বাস্তব ধারনা পেলেন প্রধানমন্ত্রী, ঘোর বিস্ময় নিয়ে বললেন রিসার্চবেজড কিছু নেই!

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনা পরিস্থিতি নিয়ে ঢাকা বিভাগের, নারায়ণগঞ্জ, মুন্সিগঞ্জ, নরসিংদী, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, শরীয়তপুর, মাদারীপুর ও গোপালগঞ্জ জেলাসমূহের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সিং এর মাধ্যমে সংযুক্ত হয়ে আজ খোজখবর নিচ্ছিলেন, দিক নির্দেশনা দিচ্ছিলেন। বিভিন্ন জেলা ঘুরে নারায়ণগঞ্জ জেলায় আসেন তিনি। এসব কনফারেন্সের অধিকাংশই থাকে তেলে পরিপূর্ণ। প্রধানমন্ত্রীর কাছে কোন সংকট প্রদর্শন নয় বরং লুকানোতে যেন সবাই ব্যস্ত। এদিক থেকে নারায়ণগঞ্জ জেলায় কিছুটা ব্যতিক্রম দেখা গেলো।

নারায়নগঞ্জের ৩০০ শয্যা হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত তত্ত্বাবধায়ক মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে জানালেন উনার হাসপাতালের ডাক্তার নার্সসহ ১৪ জন আক্রান্ত। এরমধ্যে হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়কও রয়েছেন। আক্রান্তের কারণ হিসেবে তিনি বললেন তারা কোন N95 মাস্ক পান নি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে বলা হলো উনারা কাছাকাছি মানের মাস্ক সংগ্রহ করছেন, সামনের সপ্তাহে আরো করবেন। প্রধানমন্ত্রীর মাস্ক সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাবে একজনের কথার মাঝখানে ডিজি হেলথ মাইক কেড়ে নিয়ে বললেন- উনারা চাহিদা জানালে পাঠানোর ব্যবস্থা করবেন।
প্রধানমন্ত্রী ঘোর বিস্ময় নিয়ে বললেন নারায়নগঞ্জে রিসার্চবেজড কিছু নেই! একটা ল্যাব করার মত উপযুক্ত কোন প্রতিষ্ঠান নেই! ঢাকার এত কাছে! তারমানে কি এরা এতদিন ঢাকার উপর নির্ভর করে চলছে! নারায়নগঞ্জের জন্য ডেডিকেটেড টেস্টের ব্যবস্থা করতে বললেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী । দিনে একবার নয় একের অধিকবার স্যাম্পল পাঠাতে বললেন।

এই ঘটনাই প্রমাণ করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বর্তমান অবস্থা। কিভাবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অন্ধকারে রাখা হচ্ছিল সেটা হয়ত কিছুটা তিনি আজ বুঝতে পারবেন। এখন দেখার পালা প্রধানমন্ত্রী এদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেয় কিনা।

Facebook Comments

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Close