ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ছেলে করোনা মোকাবিলায় স্বেচ্ছায় বদলী হয়ে এলেন হটস্পট নারায়ণগঞ্জে

সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা রোগী না পেয়ে এই ভাইরাসের হটস্পট নারায়ণগঞ্জে স্বেচ্ছায় বদলি হয়ে চলে এসেছেন এক চিকিৎসক।

তিনি আবেদনপত্রে উল্লেখ করেন, আমার নানা মুক্তিযোদ্ধা বীরউত্তম সুবেদার হাবিবুর রহমান দেশের জন্য যুদ্ধ করেছেন। পিলখানায় বিজিবির নিউমার্কেট সংলগ্ন ৩ নাম্বার গেট আমার নানার নামে নামাঙ্কিত। তার কাছে মুক্তিযুদ্ধের অনেক গল্প শুনে আমিও দেশ সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করতে অনুপ্রাণিত হয়েছি। আমাকে করোনা রোগীদের সেবা করার সুযোগ দিলে আমার মেধা এবং পরিশ্রম দেশের কাজে লাগবে।

কতৃপক্ষ ২ দিনের মধ্যেই ওনাকে নারায়ণগঞ্জে বদলি করেছেন। তিনি ইতিমধ্যে সেখানে করোনা রোগীদের সেবা দেওয়া শুরু করেছেন।নারায়ণগঞ্জের করোনা রোগীরা ওনার মত মানবিক ডাক্তারকে কাছে পেয়ে মানসিকভাবে বেশ উজ্জীবিত।

ওই চিকিৎসকের নাম ডা. মশিউর রহমান। তার বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়। তিনি সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সহকারী সার্জন পদে কর্মরত ছিলেন। তুলনামূলক অনেক কম সংক্রমিত জেলা সিরাজগঞ্জ ছেড়ে স্বেচ্ছায় ঝুঁকিপূর্ণ জেলা নারায়ণগঞ্জে তার চলে আসার ঘটনায় দেশজুড়ে আলোচনার জন্ম দিয়েছে।

প্রসঙ্গত, ডা. মশিউর রহমান ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে মাধ্যমিক শেষ করে ভর্তি হন নটর ডেম কলেজে। এরপর খুলনা মেডিকেল কলেজ থেকে পাস করে ৩৯তম বিসিএস ক্যাডার হন।

Facebook Comments

Related Articles