কি লেখা ছিল সালমান শাহ’র লাভ লেটারে ?

বাংলা চলচ্চিত্রে আজ থেকে ২৭ বছর আগে ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মাধ্যমে অভিষেক হয় ক্ষণজন্মা নায়ক সালমান শাহ‘র। এরপরে শুধুই সামনে এগিয়ে যাওয়া এই নায়কের। কিন্তু হঠাৎ করেই কোথায় যেন ছন্দপতন হয়ে যায় তার। ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর রহস্যজনকভাবে মৃত্যু হয় তার….

কিন্তু রূপালি জগতে আসার আগেই সালমান শাহ আর সামিরার প্রেম ছিল। আর সেই প্রেমের গল্পই শোনালেন সামিরা নিজেই। প্রেম শুরু হওয়ার আগেই তাদের প্রথম পরিচয়ের স্মৃতিচারণ করে সামিরা বলেন, ১৯৯০ সালের ১২ জুলাই চট্টগ্রাম ক্লাবে একটি ফ্যাশন শোয়ের আয়োজন করা হয়। ফ্যাশন শোয়ের সদস্য ছিল আমার বাবা।

সে হিসেবে আমি ফ্যাশন শো দেখতে গিয়েছিলাম। সেদিন ইমন (সালমান শাহ) নামে একটি ছেলে পারফর্ম করেছিল। এরপরে শো করে পরিচয় হয় তার সঙ্গে। পরিচয়ের প্রথম কথাতেই ইমন হঠাৎ সবার সামনে আমাকে বলে বসল, তুমি কিন্তু আমার বউ!

সামিরা বলেন, কথাটা শুনে আমি ভেবেছিলাম ছেলেটা একটা পাগল! পর দিন সকালবেলা ইমন মলি খালাকে নিয়ে আমার আম্মার পার্লারে চলে আসে। তখন সে আমাকে একটি চিঠি দিয়ে যায়। চিঠিটি ছিল রক্তে লেখা। রক্তের চিঠি দেখে ভয় পেয়ে গিয়েছিলাম। এর আগেও প্রেমের চিঠি পেয়েছি। কিন্তু রক্তে লেখা চিঠি এই প্রথম, তাই কীভাবে ধরব বুঝে উঠতে পারছিলাম না। চিঠির শুরুটাই ছিল ‘বউ’ দিয়ে। এরপর লেখা- প্রথম দেখাতেই আমি বুঝে গেছি আমার জীবনে আমি কাকে চাই। আমি দেখা মাত্রই বুঝে গেছি তুমি আমার।

চিঠি লিখেই থেমে জাননি সালমান শাহ। প্রত্যেকদিন সামিরার বাসার সামনে এসে দাঁড়িয়ে থাকতেন সালমান শাহ। সামিরা বলেন, ইমন আগে থেকেই মডেলিং ও টুকটাক নাটকের কাজ করত। শত ব্যস্ততার মাঝেও আমাকে কিন্তু সময় দিতে ভুল হতো না।

Facebook Comments

Related Articles