চিকিৎসকের বিরুদ্ধে অসত্য সংবাদের প্রতিবাদ জানিয়েছে ‘এফডিএসআর’

খুলনার পাইকগাছায় ইউনিয়ন উপ-স্বাস্থ্যকেন্দ্রের চিকিৎসক ডা. অরূপ অধিকারীর বিরূদ্ধে অসত্য সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদ জানিয়েছে এফডিএসআর। ফাউন্ডেশন ফর ডক্টরস সেফটি, রাইটস এন্ড রেসপন্সিবিলিটিজের (এফডিএসআর) পক্ষ থেকে চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. আবুল হাসনাৎ মিল্টন এবং মহাসচিব ডা. শেখ আব্দুল্লাহ আল মামুন স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে এ প্রতিবাদ জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, “বৈশ্বিক করোনা মহামারী মোকাবেলায় যখন ডাক্তারসহ বাংলাদেশের স্বাস্থ্যকর্মীরা জীবনবাজি রেখে রোগীদের চিকিৎসা সেবা প্রদান করছে, যে মুহূর্তে মিডিয়া আমাদের সকল গঠনমূলক কাজে সহযোগিতা করছে, সেই মুহূর্তে আমরা গভীর উদ্বেগের সাথে লক্ষ্য করছি যে, মফস্বলের কিছু হলুদ সাংবাদিক মিথ্যে সংবাদ পরিবেশন করে ডাক্তারদের বিরূদ্ধে কালিমা লেপনের অপচেষ্টায় লিপ্ত। সম্প্রতি খুলনার পাইকগাছায় ইউনিয়ন উপ-স্বাস্থ্যকেন্দ্রের চিকিৎসক ডা. অরূপ অধিকারী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হোম আইসোলেশনে আছেন। কদিন আগে কোভিড-১৯ এর মত উপসর্গ দেখা দিলে তিনি নমুনা পরীক্ষা করতে দেন, পরবর্তীতে যার ফলাফল পজিটিভ আসে। এমতাবস্থায়, কেন্দ্রটি বন্ধ ঘোষনা ও সংশ্লিষ্ট চিকিৎসককে আইসোলেশনে সহ অন্যান্য কর্মচারীদের হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। হোম আইসোলেশনে অবস্থানরত বর্তমানে ডা. অরূপের অবস্থা আরেগ্যের পথে।

একদিকে ডা. অরূপ যখন করোনার সাথে লড়ছে, তখন ‘নিউজ জাতীয় বাংলাদেশ’ নামের একটি অনলাইন পোর্টালের পাইকগাছা উপজেলা প্রতিনিধি-(খুলনা) এ কে আজাদ তার বিরূদ্ধে সম্পূর্ণ কাল্পনিক ও ভিত্তিহীন, অসত্য সংবাদ পরিবেশন করেছে। এই অসত্য সংবাদ প্রকাশের বিরূদ্ধে আমরা তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং নিন্দা জ্ঞাপন করছি। আমরা অবিলম্বে দু:খ প্রকাশ ও ক্ষমা প্রার্থনাপূর্বক এই ভূয়া সংবাদটি প্রত্যাহারের জন্য পোর্টালের সম্পাদককে অনুরোধ জানাচ্ছি।

কোভিড-১৯ রোগ এবং করোনা পরীক্ষা পদ্ধতির সম্পর্কে ন্যূনতম ধারণাসম্বলিত কোন মানুষের পক্ষে এধরণের সংবাদ পরিবেশন করা সম্ভব নয়। অনলাইন পোর্টালটিতে ডা. অরূপের বিরূদ্ধে টাকার বিনিময়ে করোনা পজিটিভের ভূয়া রিপোর্ট সংগ্রহের যে গুরুতর অভিযোগ উত্থাপন করা হয়েছে, তা প্রমানের দায়িত্ব এই সাংবাদিকের। এর মধ্য দিয়ে সমগ্র করোনা পরীক্ষার পদ্ধতিকেই প্রশ্নবিদ্ধ করা হয়েছে। সুতরাং, আমরা উক্ত সাংবাদিককে তার উত্থাপিত অভিযোগ প্রমানের জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি। আর যদি তিনি প্রমাণে ব্যর্থ হন, তাহলে ভূয়া সংবাদ পরিবেশনের দায়ে আমরা উক্ত পোর্টালের সম্পাদক, প্রকাশক ও সাংবাদিকের বিরূদ্ধে আইনগত পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হব।”

Facebook Comments

Related Articles