অজ্ঞাতনামা আসামী হিসেবে গ্রেপ্তার জবি শিক্ষার্থীর মুক্তির দাবীতে মানববন্ধন

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মনির হোসেন এর মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

আজ ১৯ জুলাই রবিবার সকাল ১০.৩০ থেকে প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীরা। এতে প্রায় অর্ধশত শিক্ষার্থী অংশ নেয়।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শরীয়তপুর জেলা ছাত্রকল্যাণের সাধারণ সম্পাদক বখতিয়ার হোসাইন বলেন, মনির আমাদের জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের একজন ছাত্র। এই লকডাউন এর জন্য সে গ্রামের বাড়িতে আছে এবং এই হত্যা ঘটনায় তাকে অজ্ঞাতনামা আসামি হিসেবে আটক করা হয়েছে। আমরা অনতিবিলম্বে মনির এর মুক্তি চাই।

মানববন্ধনে বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০ ম ব্যাচের শিক্ষার্থী দেলোয়ার হোসেন বলেন, মনির একজন নিরীহ ছেলে। তার সাথে বাদী বা বিবাদী পক্ষের কারো সাথে কোনো সংযোগ ছিলো না। সে তৃতীয় পক্ষের লোক এবং ঘটনার দিন সে ঘরেই অবস্থান করছিলো কিন্তু তাকে প্রহসন মুলুক ভাবে আটক করে কোর্টে চালান করে দেওয়া হয়। আমরা আমাদের ভাইয়ের অতি দ্রুত মুক্তি চাই এবং এ বিষয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করছি।

জানা যায় মনির জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের ২ য় বর্ষের শিক্ষার্থী । গত ১ জুলাই তাকে তার গ্রামের বাড়ি শরিয়তপুর জেলার জাজিরা উপজেলার সেনের চর ইউনিয়নের বলাই মুন্সী কান্ধি গ্রামে তার বাসা থেকে তাকে অজ্ঞাতনামা আসামী হিসেবে গ্রেফতার করা হয়। সে এখনো জেলে রয়েছে । জেলা দায়রা জজ আদালতে জামিন আবেদন করলে তা নাকচ করে দেন।

এ বিষয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর মোস্তফা কামালের সাথে কথা বললে তিনি জানান মানববন্ধন এর বিষয়ে আমি কিছুক্ষণ আগে অবগত হয়েছি এ বিষয়ে আমি বলবো মনির যেন কোন হয়রানির শিকার না হয়।

Facebook Comments

Related Articles