শহীদ চিকিৎসকদের জাতীয় বীরের মর্যাদা দেওয়ার পরিকল্পনায় সরকার

বৃহস্পতিবার,২০ আগস্ট,২০২০

দেশে করোনা মহামারিতে প্রাণ হারান চিকিৎসক সহ স্বাস্থ্যকর্মী এবং অনেক ফ্রন্টলাইনার।এসকল চিকিৎসক দের জাতীয় বীরত্বের মর্যাদায় ভূষিত করার পরিকল্পনা করছে সরকার। বুধবার (১৯ আগস্ট) স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের উপসচিব (আইন অধিশাখা) মাকসুদা ইয়াসমিন স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সরকার হাইকোর্টের স্বতঃপ্রণোদিত রুলের পরিপ্রেক্ষিতে এ ধরনের চিন্তাভাবনা করছে ।

চিঠিতে সংশ্লিষ্ট কমিটির কর্মপরিধি বিষয়ে বলা হয়েছে, নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তিদের চিকিৎসা প্রদান করতে গিয়ে যেসব চিকিৎসক, সেবক সেবিকা, স্বাস্থ্যকর্মী, হাসপাতাল/চিকিৎসা কেন্দ্র সংশ্লিষ্ট অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারী নিজেরা করোনায় আক্রান্ত হয়ে জীবন উৎসর্গ করবেন তাদেরকে জাতীয় বীরের মর্যাদা দেয়া যায় কি-না, সে বিষয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে সুপারিশ প্রণয়ন এর কথা বলা হয়েছে এবং তা বাস্তবায়নের জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করার কথা বলা হয়েছে।

শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারগণ যেসব সুযোগ-সুবিধা পান, সেসব সুযোগ-সুবিধা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে জীবন উৎসর্গকারী চিকিৎসক, সেবক/সেবিকা, স্বাস্থ্যকর্মী, হাসপাতাল ও স্বাস্থ্যকেন্দ্র সংশ্লিষ্ট সকল অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পরিবারকে প্রদান করা যাবে কি-না, সে বিষয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে সুপারিশ প্রণয়ন। এবং

সেবা প্রদানকারী অন্যান্য প্রতিষ্ঠান যেমন-ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা এবং ফায়ার সার্ভিস ইত্যাদি প্রতিষ্ঠান এ রকম দাবি পেশ করবে কি-না, সে বিষয়ে সুপারিশ প্রণয়ন।

করোনায় আক্রান্তদের চিকিৎসা সেবায় নিয়োজিত ডাক্তারসহ সংশ্লিষ্টদের কেন জাতীয় বীরের মর্যাদা দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করে হাইকোর্ট। গত ২৫ মার্চ বিচারপতি মো. আশরাফুল কামাল ও বিচারপতি সরদার মো. রাশেদ জাহাঙ্গীরের হাইকোর্টের বেঞ্চ স্বপ্রণোদিত হয়ে রুল জারি করে।

রুলের বিষয়ে করণীয় ও সুপারিশ প্রণয়নের জন্য এরই মধ্যে আট সদস্যবিশিষ্ট একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিতে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিবকে (প্রশাসন) আহ্বায়ক এবং যুগ্মসচিব/উপসচিবকে (আইন অধিশাখা) সদস্যসচিব করা হয়েছে।

প্রজ্ঞাপন

কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন: মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগ, অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ, আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আইন ও বিচার বিভাগ এবং মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব অথবা যুগ্মসচিব পদমর্যাদার কর্মকর্তা।

পরবর্তীতে রুল অনুযায়ী কমিটিতে নতুন সদস্য যোগ করা হবে সেই বিষয়েও সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। প্রস্তাবনাটি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে কমিটির সদস্যগণ তৎপর হয়েছেন বলে জানা যায়।
আত্মদীপ্তা /এই সময়৩৬৫ নিউজ পোর্টাল

আমাদের সাথে যুক্ত থাকুন::
লাইক দিনঃ (‘এই সময়’ ফেসবুক পেইজ)
সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে:https://youtu.be/ZBMTaqUNbh4

Facebook Comments

Related Articles